<

p style=”text-align: justify;”>গুডিসন পার্কে এভারটনের কাছে দুই পয়েন্ট হারিয়েছে লিভারপুল। তবে দুই পয়েন্টের থেকেও বড় ধাক্কা লেগেছে অল রেডদের। ম্যাচটি ২-২ গোলে ড্র হলেও পায়ের লিগামেন্ট ইনজুরি নিয়ে মাঠ ছাড়তে হয়েছে লিভারপুলের ডাচ ডিফেন্ডার ভার্জিল ভ্যান ডাইককে। এই সেন্টার ব্যাকের ইনজুরি নিয়ে অল রেড কোচ ইয়্যুর্গেন ক্লপ বলেন, আমি জানি না ওর ইনজুরির কি অবস্থা কিন্তু সেটা ভালো মনে হচ্ছে না।

লিভারপুলে নেম লেখানোর পর রেডদের রক্ষণের চিত্রই পাল্টে দিয়েছেন ভার্জিল ভ্যান ডাইক। তার পর্বতসম দৃঢ়তায় ইউরোপের অন্যতম সেরা রক্ষণভাগ এখন লিভারপুলের। তবে শনিবার মার্সিসাইড ডার্বিতে ম্যাচের ১১তম মিনিটেই পায়ে আঘাত পেয়ে মাঠ ছাড়েন ভ্যান ডাইক। খেলার আট মিনিটের মাথায় এভারটনের ডি বক্সে ঢুকে পড়লে জর্ডান পিকফোর্ড ফাউল করে বসেন ভ্যান ডাইককে। আর সঙ্গে সঙ্গে ব্যথায় চিৎকার দিয়ে ওঠে ভ্যান ডাইক।

মাটিয়ে লুটিয়ে তখনও গড়াগড়ি করছিলেন ভ্যান ডাইক, এরপর চিকিৎসকরা মাঠে আসলেন আর একটু পরেই জানালেন তিনি আর খেলতে পারবেন না। তাই তো বাধ্য হয়েই ক্লপকে বদলি খেলোয়াড় নামাতে হলো। আর ম্যাচ শেষ ক্লপ জানালেন ভ্যান ডাইকের ইনজুরির অবস্থা ভালো না।

ম্যাচ শেষে সংবাদসম্মেলনে ক্লপ বলেন, ‘আমি আসলে জানি না এটা কতটা ভয়াবহ, আমি সত্যিই জানি না তবে অবস্থা ভালো দেখাচ্ছে না। ভার্জিল আমাদের হয়ে টানা কতটি ম্যাচ খেলেছে তা আমার হিসেবের বাইরে। ও ব্যথা নিয়েও খেলেছে, যখন ও খেলে তখন নিজের সর্বোচ্চটুকু দিয়েই খেলে। কিন্তু আজ ও আর খেলতে পারেনি। এটা ভালো লক্ষণ নয়।’

২৯ বছর বয়সী ডাচ ডিফেন্ডার লিভারপুলের হয়ে এই প্রথম ইনজুরি নিয়ে খেলার মধ্যেই মাঠ ছাড়লেন। এছাড়াও ম্যাচে আরও ইনজুরিগ্রস্ত হন থিয়াগো আলকান্ত্রা। এ ব্যাপারে ক্লপ বলেন, ‘যখন আমি মাঠ ছাড়ছিলাম তখন থিয়াগো আমাকে বললো রিচার্লিসনের রেডকার্ডের সময় আমাকে ইনজুরড করেছে ও। আমরা থিয়াগোকেও আলাদাভাবে দেখব যে ওর কি অবস্থা।’

লিভারপুল দাবি করছিল ভ্যান ডাইককে পিকফোর্ডের করা ডি বক্সের ভেতরের ফাউলটি পেনাল্টি যোগ্য অপরাধ। তবে রেফারি জানিয়ে দেন অফসাইডের কারণে গোলের সুযোগ আগেই নষ্ট করেছেন ভ্যান ডাইক। ক্লপ বলেন, ‘এটা পরিস্কার পেনাল্টি ছিল, আমি দেখেছি অফসাইডের পতাকা উঁচিয়ে ধরেছেন রেফারি। তবে তারপরেও আমি ভেবেছিলাম রেফারি ভ্যান ডাইকের ওপর করা ফাউলটা দেখবেন।’

যদি পায়ের লিগামেন্ট ছিঁড়ে যায় কিংবা বড় ধরনের আঘাত লেগে থাকে তাহলে ৬-৭ মাসের জন্য মাঠের বাইরে চলে যেতে হতে পারে ভ্যান ডাইককে। এখনও লিভারপুল কিংবা ইংলিশ সংবাদমাধ্যম থেকে এ ব্যাপারে কিছুই জানানো হয়নি। ভ্যান ডাইককে এমন ফাউল করেও কোনো কার্ড দেখেননি পিকফোর্ড। এ ব্যাপারে ক্লপ বলেন, ‘আমি বলছি না পিকফোর্ড ভ্যান ডাইককে ইনজুরিতে ফেলার জন্য এমন ফাউল করেছে। তবে ডি বক্সের ভেতরে গোলরক্ষকরা এমন ফাউল করে না।’

The post ভ্যান ডাইকের ইনজুরির অবস্থা ভালো নয়: ক্লপ appeared first on Sarabangla | Breaking News | Sports | Entertainment.

Leave a Reply

%d bloggers like this: